এনএসটি ফেলোশিপ পেলেন ইবির ১২ শিক্ষক

  • ইবি প্রতিনিধি
  • ২৪,মে,২০২২ ০৭:৪৯ PM

গবেষণা প্রকল্পের জন্য জাতীয় বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ফেলোশিপ পেয়েছেন ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের (ইবি) ১২ জন শিক্ষক। বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি কর্মসূচি খাত থেকে ২০২১-২২ অর্থবছরে বিশেষ গবেষণা অনুদানের জন্য তারা মনোনীত হয়েছেন।

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইট সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। মনোনীত শিক্ষকরা তাদের প্রকল্প অনুযায়ী সর্বোচ্চ দুই থেকে চার লাখ টাকা আর্থিক সহায়তা পাবেন। ১৯৭৭-১৯৭৮ অর্থবছর থেকে প্রতিবছর পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়, গবেষণা প্রতিষ্ঠানে অধ্যয়নরত ও গবেষণারত এমএস, এমফিল, পিএইচডি পর্যায়ের শিক্ষার্থী ও গবেষকদের এ অনুদান দেয়া হচ্ছে।

ওয়েবসাইট সূত্রে জানা যায়,  এ বছর ৬৩৮টি গবেষণা প্রকল্পের অনুদানের জন্য নির্বাচিতদের তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে। এতে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের ১০ জন শিক্ষক মনোনিত হয়েছেন। নির্বাচিত এসব শিক্ষকরা হলেন, ইকেট্রিক্যাল অ্যান্ড ইলেক্ট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ড. আব্দুল্লাহ আল মাসুদ, সহযোগী অধ্যাপক ড. হেলাল উদ্দীন, অধ্যাপক ড. মনজুরুল আলম এবং অধ্যাপক ড. মমতাজুল ইসলাম।

এছাড়া বায়োটেকনোলজি অ্যান্ড জেনেটিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ড. আবু হেনা মোস্তফা জামাল হ্যাপী, প্রভাষক আনিসুল কবির, অধ্যাপক ড. আনোয়ারুল হক, সহযোগী অধ্যাপক ড. আজিজুল ইসলাম, সহযোগী অধ্যাপক ড. মফিজুল ইসলাম এবং সহকারী অধ্যাপক রেজাউল করিম। সরকারের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি মন্ত্রণালয় এই ফেলোশিপ প্রদান করে থাকে। সাধারণত তিনটি ক্ষেত্রে শিক্ষার্থী ও গবেষকদের এই ফেলোশিপ প্রদান করা হয়। প্রতিবছর বায়োলজিক্যাল সায়েন্স, মেডিক্যাল সায়েন্স, এনভায়রনমেন্টাল সায়েন্স, ইঞ্জিনিয়ারিং অ্যান্ড অ্যাপ্লাইড সায়েন্স, ফিজিক্যাল সায়েন্স ও ইন্টার-ডিসিপ্লিনারি গ্রুপসহ ৬টি গ্রুপে গবেষণা অনুদান দেওয়া হয়। বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ে উচ্চশিক্ষা ও গবেষণায় উৎসাহ দেওয়াই এই ফেলোশিপের মূল উদ্দেশ্য।

সম্পর্কিত খবর

ইবিতে ক্যারিয়ার আড্ডা
  • ২৪,মে,২০২২ ০৯:০৪ PM